মঙ্গলবার | ৯ মার্চ, ২০২১ | ২৪ ফাল্গুন, ১৪২৭
সময় নিউজ ২৪ > দেশ ও জনপদ > শ্যামনগরে ঘের মালিকদের আর্থিক সাহায়তা প্রদানে অনিয়ম

শ্যামনগরে ঘের মালিকদের আর্থিক সাহায়তা প্রদানে অনিয়ম

শ্যামনগরে ঘের মালিকদের আর্থিক সাহায়তা প্রদানে অনিয়ম
আনিছুর রহমান মিলন, শ্যামনগর (সাতক্ষীরা): করোনার প্রভাবে ও ঘূর্ণিঝড় আম্পানে ক্ষতিগ্রস্ত প্রান্তিক ঘের মালিকদের আর্থিক সহায়তা প্রদানে সরকার কর্তৃক একটি প্রকল্প প্রদান করেন।
উক্ত আর্থিক অনুদান প্রদানে শ্যামনগরে ব্যাপক অনিয়ম ও অর্থ বানিজ্যের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ ঘটনায় সোমবার সকালে প্রান্তিক শত শত ঘের মালিকরা উপজেলা মৎস্য অফিসে এসে তাদের অভিযোগের কথা বলেন। এছাড়া ৯ নং বুড়িগোয়ালিনী ইউনিয়নের প্রকৃত ঘের মালিকদের পক্ষ থেকে সাতক্ষীরা- ৪ আসনের সংসদ সদস্য সহ বিভিন্ন দপ্তরে অভিযোগ করেছে। বুড়িগোয়ালিনী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান বাবু ভবতোষ কুমার মন্ডলের চাচাতো ভাই বিশ্বজিৎ কুমার মন্ডল অর্থের বিনিময়ে তালিকা প্রণনয়ন করেছে। ৭নং মুন্সীগঞ্জ ইউপি চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আবুল কাশেম মোড়ল তালিকা অনিয়মের জন্য উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর অভিযোগ করেছেন। নির্বাহী অফিসার জরুরী ভিত্তিতে ব্যবস্থা গ্রহনের জন্য উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তাকে নির্দেশ দিয়েছেন। অভিযোগে আরও বলা হয়েছে, ঘূর্ণিঝড় আম্ফানে সুন্দরবন উপকূলীয় বেড়ীবাঁধ ভেঙ্গে মৎস্য ঘের গুলো পানিতে প্লাবিত হয়ে দীর্ঘদিন জোয়ার ভাটায় প্রবাহমান থাকায় তারা ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্থ হয়ে পড়ে।
এমতাবস্থায় সরকার কর্তৃক একটি প্রকল্পে বাজেট প্রণনয়ন করে ক্ষতিগ্রস্ত ঘের মালিকদের আর্থিক অনুদান বরাদ্দ করে। শ্যামনগর উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা তুষার মজুমদার, ইউপি চেয়ারম্যানদের সহযোগিতা ছাড়া নিজের লোক দ্বারা অর্থের বিনিময়ে তালিকা প্রণনয়ন করেন। এতে ক্ষতিগ্রস্থ ঘের মালিকদের নাম অন্তর্ভুক্ত না করে ঘের নেই এমন ব্যক্তিদের নাম অন্তর্ভুক্ত করে তাদের কাছ থেকে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিয়েছে। নাম প্রকাশ না করার স্বত্বে টাকা পাওয়া অনেকে জানান, তাদের পাওয়া টাকা থেকে অর্ধেক টাকা তালিকা প্রণনয়নকারীদের দিতে হয়েছে।
এ বিষয়ে শ্যামনগর উপজেলা সিনিয়র মৎস্য কর্মকর্তা তুষার মজুমদারের মুঠোফোনে কথা হলে তিনি বলেন, উপজেলার ১২টি ইউনিয়নে ক্ষতিগ্রস্ত মৎস্যঘের, সাদা মাছের ঘের, কাঁকড়ার হ্যাচারীর বিভিন্ন ক্যাটাগরি ৪ হাজার ৮শত ৫ জন এর নাম তালিকাভুক্ত হয়েছে। তবে অনেকে এখনও টাকা পাইনি। তিনি আরও বলেন, প্রত্যেকটি ইউনিয়নে প্রকল্পের পক্ষ থেকে লোক দিয়ে তালিকা প্রণনয়ন করা হয়েছে। তবে- অনিয়ম ও অর্থ লেনদেন হয়ে থাকলে তদন্ত করে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

কমেন্টস

Leave a comment

x