শুক্রবার | ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ | ৮ ফাল্গুন, ১৪২৬
সময় নিউজ ২৪ > সাতক্ষীরা > আশাশুনির শ্রীউলায় শুকনো ঘেরে মাছ লুটের অভিযোগ!

আশাশুনির শ্রীউলায় শুকনো ঘেরে মাছ লুটের অভিযোগ!

আশাশুনির শ্রীউলায় শুকনো ঘেরে মাছ লুটের অভিযোগ!

জিএম আল ফারুক, আশাশুনি (সাতক্ষীরা): আশাশুনিতে শুকনো ঘেরে লাখ টাকার মাছ লুট ও কথিত বিস্ফোরনের অভিযোগে রাতারাতি থানায় মামলা নিয়ে সাংবাদিক ফায়জুল কবীরকে গ্রেফতার করেছে থানাপুলিশ। মঙ্গলবার গভীর রাতে গাজীপুরের নিজবাড়ী থেকে ফায়জুল কে আটক করে সকালে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। ফায়জুলের পরিবার ও সংশ্লিষ্ট ভূমিহীনরা জানায়, আমরা বিগত কয়েক বছর আগে থেকে সরকার বাহাদুরের নিকট থেকে ডিসিআর নিয়ে উক্ত সম্পত্তি ভোগদখল করে আসছি। ২০১৫সালে লাঙ্গনদাড়ীয়া মৌজার ১নং খাস খতিয়ান ভুক্ত সম্পত্তি সরকার বাহাদুরকে রাজস্ব দিয়ে স্থানীয় ভূমিহীন মেহেরুন নেছার নামে ৫০শতক, মনোয়ারা বেগমের ৫০শতক, হামিদা খাতুনের ৫০শতক, রাজিয়া খাতুনের ৫০শতক, আরজান আলীর ৫০শতকসহ ৯জন ভুমিহীন কয়েক বছর ধরে একসনা ডিসিআর নিয়ে শান্তিপূর্ণভাবে ভোগদখলে আছেন। গত সোমবার বিসমিল্লাহ মৎস্য ঘেরের পক্ষে কালিগঞ্জের কালিকাপুর গ্রামের শামসের গাজীর ছেলে জিএম বাহার বাদী হয়ে পানি ছাড়া শুকনা ঘেরে লক্ষাধিক টাকার মাছ লুট, ঘেরের বাসা ভাংচুর, হত্যার উদ্দেশে মাথায় আঘাত ও বোমা ফাটিয়ে ত্রাস সৃষ্টির অভিযোগ এনে নিয়মিত মামলা নং ০৫. তাং ০৩(০২)২০২০ একটি মিথ্যা মামলা দায়ের করে। এবিষয়ে স্থানীয় ইউপি সদস্য অলিউল্লাহ সানার সঙ্গে মুঠো ফোনে কথা হলে তিনি জানান, ঘটনা সম্পর্কে আমি কিছুই জানিনা। এদিকে আশাশুনি থানা পুলিশ মামলা দায়েরের ৩ঘন্টার ব্যবধানে সাংবাদিক ফায়জুল কবীরকে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করে। আশাশুনি প্রেসক্লাবের কর্মকর্তা ও সদস্যবৃন্দসহ উপজেলার সকল সাংবাদিক এঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন এবং অবিলম্বে মিথ্যা মামলা প্রত্যাহারের জোর দাবী জানিয়েছেন।

কমেন্টস

Leave a comment